ভিশন ডেস্ক:

তাঁর উত্থান ও রাজনীতি প্রথম থেকেই চমকে ভরা। ৩ বছরের অজ্ঞাতবাস শেষে প্রকাশ্যে এসে ফের একবার চমক দিলেন গোর্খা জনমুক্তি মোর্চার নেতা বিমল গুরুং। বিজেপির সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করে তৃণমূলের হাত ধরার প্রস্তাব দিলেন তিনি। যদিও তাঁর দাবি, এব্যাপারে তৃণমূলের সঙ্গে এখনো কোনও কথা হয়নি তাঁর। 

বুধবার হঠাৎই কলকাতায় উদয় হন বিমল গুরুং। সঙ্গে ছিলেন তাঁর সহযোগী রোশন গিরি। সাংবাদিক বৈছর করে গুরুং বলেন, আমি এখনো মনে করি গোর্খাল্যান্ড গঠনের মাধ্যমেই আমাদের সমস্যার রাজনৈতিক সমাধান সম্ভব। তাই যে দল আমাদের দাবিকে সমর্থন করবে আমরা তাকেই সমর্থন করব। 

এর পরই বিজেপির বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ তোলেন গুরুং। বলেন, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ বারবার গোর্খাল্যান্ড গঠনের আশ্বাস দিলেও ৬ বছরে সেই দাবি পূরণ হয়নি। তাই আমরা বিজেপির সঙ্গ ত্যাগের সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রশংসা করে তিনি বলেন, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যাকে যা প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন তা পালন করেছেন। তিনি আদর্শ নেত্রী। আমরা চাই ২০২১ সালের বিধানসভা নির্বাচনে তৃতীয়বারের জন্য মুখ্যমন্ত্রী দেখতে চাই মমতাকে। বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূলের সঙ্গে লড়তে চাই।

তিনি বলেন, আমি কোনও দুষ্কৃতী বা দেশদ্রোহী নই। রাজনৈতিক আন্দোলনে সামিল হওয়ায় আমার বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। সেই ব্যাপারটা আলোচনা করে মিটিয়ে নেওয়া যাবে। গুরুং বলেন, তিন বছর দিল্লিতে থাকলেও গত ২ মাস ঝাড়খণ্ডে ছিলেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected By Kolkatavision !!